স্টেশন মাস্টার বিহীন সিলেট রেলওয়ে,ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা দিয়ে যাত্রি ভোগান্তি চরমে

32 total views, 1 views today

সাহেদ আহমদ:: সড়কে যানবাহনের প্রতিযোগিতা ও দুর্ঘটনা বেড়ে যাওয়ায় সাধারণ মানুষ এখন গুরুত্বপূর্ণ কাজ বা বাড়ি ফিরতে ট্রেন যাত্রাকে নিরাপদ মনে করে থাকে,কিন্তু দীর্ঘ এই পথ ট্রেনে যেতে হলে পোহাতে হয় নানা ভোগান্তি। তাছাড়া সিলেট রেলওয়ে স্টেশনে প্রায় একবছর যাবত স্থায়ী স্টেশন মাস্টার না থাকার কারনে সংকট আরো ঘনীভূত হয়েছে।সরজমিনে গিয়ে দেখা যায় সিলেট থেকে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে ফেরা ঘরমুখো মানুষের টিকিটের জন্য দীর্ঘ লাইন। কাউন্টারে টিকিট নেই। প্ল্যাটফর্মে যাত্রীদের দীর্ঘ লাইন কেবল স্ট্যান্ডিং টিকিট কিনতে। আসন সংকটে যাত্রী ভোগান্তি নতুন নয়।

যাত্রীসেবা পাওয়া যাত্রীদের অভিযোগ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা দিয়ে আর কতদিন চলবে সিলেট রেলওয়ে স্টেশন। এতে করে পর্যাপ্ত যাত্রীসেবা পাওয়া যায় না বলে টিকিট লাইনে দাঁড়ানো যাত্রীরা অভিযোগ করেন।ট্রেনগুলোতে আগে যত কোচ ছিল, সেগুলো থেকে আরও কমিয়ে আনা হয়েছে। এসব কারণে সিলেট রুটে ট্রেনযাত্রায় যাত্রীদের বিড়ম্বনায় পড়তে হচ্ছে আরো বেশী করে। 

তাছাড়া ট্রেনের সিডিউল এর রয়েছে গড়মিল। এগুলো দেখার যেন কেউ নেই।

গত সোমবার দুপুরে সিলেট বিভাগীয় রেল স্টেশনে ঢাকাগামী পারাবত এক্সপ্রেসের যাত্রী সিলেট জিন্দাবাজারের বিশিষ্ট ব্যাবসায়ী ফুয়াদ ইসলাম বলেন, “ট্রেনের ভাড়া বাড়লেও বাসের চেয়ে ট্রেন জার্নি সেফ। এ কারণে মানুষ ট্রেনে যেতে চায়। কিন্তু এভাবে স্থায়ী স্টেশন মাস্টার বিহীন ট্রেনে শিডিউল বিপর্যয় অব্যাহত থাকলে যাত্রীরা আস্তে আস্তে ট্রেন জার্নি থেকে মুখ ফিরিয়ে নিবে। তিনি বলেন, “ট্রেনের ভাড়া বেড়েছে ঠিকই কিন্তু সেবার মান আগের মতোই রয়েছে।

এব্যাপারে সিলেট রেলওয়ে স্টেশনে মাস্টার অফিসে সরাসরি যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে স্টেশনে দায়িত্বরত একজন নিরাপত্তা কর্মী জানান স্যার(ভারপ্রাপ্ত স্টেশন মাস্টার) অফিসের কাজে একটু বাহিরে আছেন। তাছাড়া পরবর্তীতে অফিসের ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও কেও ফোন রিসিভ করে নাই।

কমেন্ট
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •