সিলেটে গণফোরাম ও জামায়াতকে ৫টি আসন ছেড়েছে বিএনপি

87 total views, 2 views today

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সিলেট বিভাগের ১৬টি আসনে ২৯ জন দলীয় প্রার্থীকে মনোনয়নের চিঠি দিয়েছে বিএনপি। পাশাপাশি দুটি অসনে জামায়াতের প্রার্থীকেও চিঠি দিয়েছে দলটি। এছাড়া তিনটি আসনে বিএনপির কোনো প্রার্থী না দিয়ে গণফোরামের প্রার্থীদের জন্য আসন তিনটি ছেড়ে দিয়েছে বলে জানা গেছে।

মঙ্গলবার রাত ১২টা পর্যন্ত (২৭ নভেম্বর) দিনব্যাপী গুলশানে বিএনপি চেয়ারপার্সনের রাজনৈতিক কার্যালয় থেকে সিলেটের ১৩টি আসনে একাধিক প্রার্থীকে এসব মনোনয়নের চিঠি দেয়া হয়।

সিলেট জেলা
সিলেট জেলার ৬টি আসনে ৯ বিএনপি নেতাসহ ১১ প্রার্থীকে মনোনয়নের চিঠি দিয়েছে বিএনপি।

সিলেট-১ (সিটি করপোরেশন-সদর) আসনে নির্বাচন করার জন্য বিএনপির পক্ষ থেকে মনোনয়ন পেয়েছেন দলটির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা খন্দকার আব্দুল মুক্তাদির ও বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ইনাম আহমদ চৌধুরী।

সিলেট-২ (বিশ্বনাথ-ওসমানীনগর) আসনে বিএনপির মনোনয়নের চিঠি পেয়েছেন নিখোঁজ বিএনপি নেতা ইলিয়াস আলীর স্ত্রী তাহসিনা রুশদীর লুনা। এ আসনে ইলিয়াস আলীর স্ত্রী লুনা ও তার ছেলে ব্যারিস্টার আবরার ইলিয়াস বিএনপির মনোনয়ন ফরম কিনলেও শেষ পর্যন্ত ইলিয়াসপত্নী লুনাকেই মনোনয়ন দেয় বিএনপি।

সিলেট-৩ (দক্ষিণ সুরমা-বালাগঞ্জ-ফেঞ্চুগঞ্জ) আসনে বিএনপির দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন চারজন। তারা হলেন, বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য শফি আহমদ চৌধুরী ও বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের উপদেষ্টা ও নির্বাহী কমিটির আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ব্যারিস্টার এম এ সালাম, বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা এমএ হক ও কেন্দ্রীয় যুবদলের সাবেক সহসভাপতি আব্দুল কাইয়ুম চৌধুরী।

সিলেট-৪ (গোয়াইনঘাট-কোম্পানীগঞ্জ-জৈন্তাপুর) আসনেও দুজনকে দেওয়া হয়েছে মনোনয়নের চিঠি। এই আসনে দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন বিএনপির কেন্দ্রীয় সহসাংগঠনিক সম্পাদক ও সাবেক সাংসদ দিলদার হোসেন সেলিম এবং বিএনপির কেন্দ্রীয় সহস্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট সামসুজ্জামান জামান।

সিলেট-৫ (কানাইঘাট-জকিগঞ্জ) আসনে মঙ্গলবার রাতে জামায়াত নেতা ও সাবেক এমপি ফরিদউদ্দিন চৌধুরীকে মনোনয়ন দিয়েছে বিএনপি। এ আসনে বিএনপির বিকল্প প্রার্থী হিসেবে কানাইঘাট উপজেলা বিএনপির সভাপতি মামুনুর রশীদ মামুনকেও মনোনয়নের চিঠি দেয়া হয়েছে।

সিলেট-৬ (গোলাপগঞ্জ-বিয়ানীবাজার) জামায়াত নেতা হাবীবুর রহমানকে মনোনয়ন দেয়া হয়েছে। একইসঙ্গে এ আসনে বিএনপির দলীয় মনোনয়নের চিঠি পেয়েছেন বারাকা গ্রুপের চেয়ারম্যান ও সিলেট জেলা ছাত্রদলের সাবেক আহ্বায়ক ফয়সল আহমদ চৌধুরী।

এছাড়া সিলেট মহানগর জামায়াতের সাবেক আমির ডা. শফিকুর রহমান বিএনপির মনোনয়ন পেয়েছেন ঢাকা-১৫ আসনে।

মৌলভীবাজার জেলা
মৌলভীবাজার জেলার ৩টি আসনে ৫ জনকে মনোনয়নের চিঠি দিয়েছে বিএনপি।

মৌলভীবাজার-১ (বড়লেখা-জুড়ী) আসনে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির মনোনয়ন দেয়া হয়েছে দুজনকে। তারা হলেন- সাবেক প্রতিমন্ত্রী ও কেন্দ্রীয় বিএনপির অন্যতম নেতা অ্যাডভোকেট এবাদুর রহমান চৌধুরী ও মৌলভীবাজার জেলা বিএনপির সহসভাপতি নাসির উদ্দিন আহমদ মিঠু।

মৌলভীবাজার-২ (কুলাউড়া-কমলগঞ্জের একাংশ) আসনে কোনো প্রার্থীকে মনোনয়নের চিঠি দেয়নি বিএনপি। এ আসনে ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা সুলতান মোহাম্মদ মনসুর নির্বাচন করবেন। তাকে এ আসনটি ছেড়ে দিয়েছে বিএনপি।

মৌলভীবাজার-৩ (সদর উপজেলা-রাজনগর) আসনে বিএনপির দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন প্রয়াত অর্থ ও পরিকল্পনা মন্ত্রী এম সাইফুর রহমানের ছেলে ও জেলা বিএনপির সভাপতি এম নাসের রহমান।

মৌলভীবাজার-৪ (কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গল) আসনে বিএনপি থেকে দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন দলটির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য হাজী মুজিবুর রহমান চৌধুরী হাজী মুজিব ও তার ছেলে মুহিত আশিক চিশতী।

সুনামগঞ্জ জেলা
সুনামগঞ্জ জেলার ৪টি আসনে সর্বমোট ৯ প্রার্থীকে মনোনয়নের চিঠি দিয়েছে বিএনপি।

সুনামগঞ্জ-১ (তাহিরপুর-জামালগঞ্জ-ধর্মপাশা ও মধ্যনগর) আসনে দলীয় মনোনয়নের চিঠি দেয়া হয়েছে বিএনপির তিন প্রার্থীকে। সুনামগঞ্জ-১ আসনে মনোনয়নের চিঠি পাওয়া তিনজন হলেন- সাবেক সংসদ সদস্য ও জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি নজির হোসেন, জেলা বিএনপির সহসভাপতি তাহিরপুর উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আনিসুল হক এবং জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক, তাহিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান কামরুল।

সুনামগঞ্জ-২ (দিরাই-শাল্লা) আসনে বিএনপির মনোনয়ন পেয়েছেন সাবেক সংসদ সদস্য বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য নাছির উদ্দিন চৌধুরী এবং যুক্তরাজ্য বিএনপির সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক তাহির রায়হান চৌধুরী।

সুনামগঞ্জ-৪ (সুনামগঞ্জ সদর-বিশ্বম্ভরপুর) আসনে মনোনয়নের চিঠি দেওয়া হয়েছে দুজনকে। তারা হলেন- সাবেক হুইপ ও বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ফজলুল হক আসপিয়া ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ও জেলা বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি দেওয়ান জয়নুল জাকেরীন।

সুনামগঞ্জ-৫ (ছাতক ও দোয়ারাবাজার) আসনে বিএনপির দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন সুনামগঞ্জ জেলা বিএনপির সভাপতি ও কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সহসাংগঠনিক সম্পাদক কলিম উদ্দিন আহমদ মিলন এবং কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য, ছাতক উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান চৌধুরী।

এছাড়া সুনামগঞ্জ-৩ (জগন্নাথপুর-দক্ষিণ সুনামগঞ্জ) আসনে কোনো প্রার্থীকে মনোনয়নের চিঠি দেয়নি বিএনপি। এ আসনে গণফোরাম নেতা যুবলীগের সাবেক প্রেসিডিয়াম সদস্য মো. নজরুল ইসলাম নির্বাচন করবেন। তাকে এ আসনটি ছেড়ে দেয়া হয়েছে বলে জানা গেছে।

তবে ২০ দলীয় জোট থেকে ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের নেতা মাওলানা শাহীনুর পাশা চৌধুরী এ আসনে মনোনয়ন পাচ্ছেন বলে তার কর্মী সমর্থকরা দাবি করেছেন।

হবিগঞ্জ জেলা
হবিগঞ্জের ৪টি আসনের মধ্যে ৩টি আসনে ৪ জনকে মনোনয়ন দিয়েছে বিএনপি। হবিগঞ্জ-২ আসনে বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক ডাঃ সাখাওয়াত হাসান জীবন, হবিগঞ্জ-৩ আসনে পৌর মেয়র জি কে গউছ ও জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক এনামুল হক সেলিম এবং হবিগঞ্জ-৪ আসনে সাবেক সাংসদ সৈয়দ মে. ফয়সল বিএনপির মনোনয়ন পেয়েছেন।

হবিগঞ্জ-১ আসনে কোনো প্রার্থী দেয় নি বিএনপি। এ আসনে অওয়ামী লীগ সরকারের সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়ার ছেলে গণফোরাম নেতা বিশিস্ট অর্থনীতিবিদ রেজা কিবরিয়া নির্বাচন করবেন। তাকে এ আসনটি ছেড়ে দিয়েছে বিএনপি।

কমেন্ট
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •