এনসিবি অফিসারকে কেঁদে কেঁদে কী বলেছিলেন শাহরুখ খান?

বিনোদন ডেস্ক:: মাদক মামলা থেকে বেশ কয়েক দিন আগেই মুক্তি পেয়েছেন শাহরুখ খানের ছেলে আরিয়ান খান। আরিয়ানের মাদককাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগের পর থেকেই মুখ বন্ধ রেখেছেন বলিউড কিং ও তার পরিবার।

আরিয়ানের মাদককাণ্ড নিয়ে শাহরুখ কোনো মন্তব্য মিডিয়া বা সোশ্যাল মিডিয়ায় না করলেও, সম্প্রতি এনসিবি কর্মকর্তা ইন্ডিয়ান পুলিশ সার্ভিস (আইপিএস) কর্মকর্তা সঞ্জয় সিং ফাঁস করেছেন কিং খানের প্রতিক্রিয়া।

ইন্ডিয়া টুডেকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এনসিবির ডেপুটি ডিরেক্টর (অপারেশন) সঞ্জয় সিং জানান, ছেলের মানসিক এবং শারীরিক সুস্থতা নিয়ে চিন্তিত ছিলেন শাহরুখ। বলিউড সুপারস্টার অনুরোধ জানিয়েছিলেন, আরিয়ানের সঙ্গে সাক্ষাৎ করার ও গোটা রাত ছেলের সঙ্গে থাকার। যদিও অনুমতি মেলেনি। শাহরুখ সেই সময় জানান, কোনো রকম প্রমাণ ছাড়াই আরিয়ানকে দোষারোপ করা হচ্ছে।

আরিয়ান ঘুমাতে পারছে না রাতে। তার শারীরিক এবং মানসিক অবস্থাও দ্রুত খারাপ হচ্ছে। শাহরুখ বাবা হয়ে কীভাবে সে যন্ত্রণা সহ্য করছেন, সে কথা জানিয়েছিলেন সঞ্জয়কে।

ছেলের কথা বলতে বলতে চোখ ভিজে যায় শাহরুখের। তিনি হতাশা আর আফসোসের সুরে বলে উঠেন, ‘মনে হচ্ছে আমরা কোনো বিরাট অপরাধী বা দানব, যারা নিমেষে এই সমাজকে শেষ করে দেব। প্রতিদিন কাজে যাওয়া অস্বস্তিকর হয়ে উঠছে আমাদের জন্য।

সঞ্জয় আরও বলেন , শাহরুখও তদন্তের সময় তার সঙ্গে দেখা করতে চেয়েছিলেন। কিন্তু তদন্ত চলার সময় অভিযুক্তের পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে দেখা করলে সেটা আচরণবিধি লঙ্ঘন হয়। তাই তিনি দেখা করেননি।

গত বছরের ২ অক্টোবর মুম্বাই উপকূলে প্রমোদতরী থেকে আরিয়ানসহ তার বন্ধুদের গ্রেফতার করে এনসিবি। প্রায় এক মাস জেলে থাকার পর জামিনে ছাড়া পান আরিয়ান খান। যদিও গত মাসেই এনসিবির পক্ষ থেকে ক্লিনচিট দেওয়া হয়েছে আরিয়ানকে। কোর্ডেলিয়া ক্রুজ মাদক মামলায় দাখিল চার্জশিটে নাম নেই আরিয়ান খানের।

কমেন্ট

Leave a Reply

Your email address will not be published.