সেই রুশ প্রতীক নিষিদ্ধ করে বিল পাশ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: ইউক্রেনের পার্লামেন্ট রাশিয়ার আগ্রাসনের প্রতীক নিষিদ্ধ করে একটি বিল পাশ করেছে। এসব প্রতীকের মধ্যে রয়েছে ‘জেড’ এবং ‘ভি’। রাশিয়ার সংসদ সদস্য ইয়ারোস্লাভ ঝেলেজনিয়াকের বরাত দিয়ে বিবিসি রোববার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

ইউক্রেন সংকট শুরু হওয়ার পর থেকে দেশটিতে রাশিয়ার সামরিক ট্যাংক ও অন্যান্য সামরিক যানের উপস্থিতি নিয়মিত হয়ে উঠেছে। একই সঙ্গে নিয়মিত হয়ে উঠেছে রুশ সামরিক যানগুলোতে লেখা ইংরেজি শেষ অক্ষর ‘জেড’ চিহ্নও। সঙ্গে রয়েছে ইংরেজি ‘ভি’ চিহ্ন।

ইউক্রেন যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকে এই যানবাহনগুলো কিয়েভ ও ইউক্রেনের অন্যান্য শহরগুলোর আশপাশে ঘুরে বেড়াচ্ছে। এসব যানবাহনের প্রত্যেকটিতেই আঁকা রয়েছে পুরু সাদা রঙে একটি ‘জেড’ চিহ্ন। কেবল তাই নয়, ইউক্রেনে রুশ সমর্থনকারীদের টি-শার্টেও আঁকা রয়েছে এই ‘জেড’।

এর রহস্য জানিয়ে দিয়েছেন রুশ থিংকট্যাংক গ্যালিনা স্টারভয়েটোভার ফেলো কামিল গালিভ। এক টুইটে তিনি জানিয়েছেন, ‘জেড’ হলো এমন একটি বর্ণ যেটিকে রাশিয়ার সামরিক বাহিনী ইউক্রেনের উদ্দেশে দেশত্যাগ করা যানবাহনের গায়ে লিখে দিচ্ছে। মাত্র কয়েক দিন আগেই উদ্ভাবিত নতুন এই প্রতীকটি রাশিয়ার নতুন আদর্শ ও জাতীয় পরিচয়ের প্রতীক হয়ে উঠেছে।’

শুধু সামরিক যান নয়, অনেক রুশ নাগরিক, ব্যবসায়ী এবং রাশিয়ার বাইরে থাকা রুশ সমর্থকেরা স্বেচ্ছায় এই চিহ্ন ব্যবহার করছেন। কেউ কেউ নিজেদের টি-শার্ট, কেউ জ্যাকেটে এমনকি গাড়িতেও ব্যবহার করছেন এই চিহ্ন।

রাশিয়া মঙ্গলবার একটি সয়ুজ রকেট উৎক্ষেপণ করেছে। ওই রকেটেও ইউক্রেনে সামরিক অভিযানের সমর্থনে ‘জেড’ অক্ষর লেখা ছিল। তবে শুধু ইউক্রেন যুদ্ধের সমর্থনে ‘জেড’ই নয়, বিশ্বজুড়ে এই যুদ্ধের পক্ষে-বিপক্ষে ব্যবহৃত হচ্ছে নানা চিহ্ন। এভাবেই রাশিয়ান বর্ণমালায় না থাকলেও চলমান যুদ্ধে রাশিয়ার প্রতীক হয়েছে উঠেছে ‘জেড’ আর ‘ভি’ চিহ্ন।

কমেন্ট

Leave a Reply

Your email address will not be published.