দোকান বন্ধ রাখতে বলায় পুলিশকে মারতে এলেন ব্যবসায়ীরা

সিলেট নিউজ টাইমস্ ডেস্ক:: করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে সিলেটের কানাইঘাটের চতুলবাজারে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য ও ওষুধের দোকান ছাড়া বাকি সব ধরনের ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করতে বলায় পুলিশ সদস‌্যদের ওপর মারমুখী আচরণ করেছেন ব‌্যবসায়ীরা। এতে বাজার থেকে ফিরে আসতে হয়েছে পুলিশ সদস্যদের।

আজ বৃহস্পতিবার বেলা একটার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে চতুল বাজারে সব ধরনের দোকানপাট খুলে রাখেন ব্যবসায়ীরা। বেলা একটার দিকে বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতিকে সঙ্গে নিয়ে পুলিশ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য, ফার্মেসি ও কাঁচাবাজার ছাড়া বাকি সব ধরনের ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করার নির্দেশ দেয়। দোকানপাট বন্ধ করতে বলায় বাজারের ব্যবসায়ীরা ঐক‌্যবদ্ধ হয়ে লাঠিসোঁটা নিয়ে পুলিশ সদস‌্যদের সঙ্গে মারমুখী আচরণ করেন। ব্যবসায়ীদের এমন আচরণে বাজার থেকে ফিরে যান পুলিশ সদস্যরা।

এদিকে বিষয়টি নিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জেলা প্রশাসনের অনুমোদন নিয়ে কানাইঘাটে বিশেষ নির্দেশনা জারি করেছে। এতে বলা হয়েছে, সকাল নয়টা থেকে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত সব দোকান খোলা থাকবে এবং রাত আটটা পর্যন্ত মুদিদোকান খোলা থাকবে।

এদিকে ওষুধের দোকান ২৪ ঘণ্টা খোলা থাকলেও খাবার ও ওষুধ কেনা এবং একান্ত জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউ রাস্তায় ঘোরাঘুরি করতে পারবে না। অপ্রয়োজনে কাউকে রাস্তায় বা অন্য কোনো স্থানে পাওয়া গেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। জরুরি কাজে নিয়োজিত মালামাল পরিবহন ও সরকারি আদেশ পরিপালনে যানবাহন ছাড়া অন্য কোনো যানবাহন পরবর্তী আদেশ না দেওয়া পর্যন্ত নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

কমেন্ট