ক্রিকেটারদের দাবি বিবেচনা করা হবে: বিসিবি সিইও

স্পোর্টস
পারিশ্রমিকসহ ১১টি দাবি নিয়ে জোট বেঁধেছেন দেশের সব ক্রিকেটার। সোমবার মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সংবাদ সম্মেলন করে বিভিন্ন দাবি তুলে ধরেন সাকিব আল হাসান-তামিম ইকবালরা।

টাইগারদের ১১ দফা দাবি নিয়ে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা নিজামুদ্দিন চৌধুরী সুজন বলেছেন, খেলোয়াড়েরা আমাদের কাছে খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আমরা এ ব্যাপারে তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করব। পরবর্তী বোর্ড সভা এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবে। বিভিন্ন সময় তাদের নানা দাবি-দাওয়া আসে। আমরা চেষ্টা করি সে সব পূরণ করতে। আজ আমাদের বিষয়টি নজরে এসেছে। অবশ্যই আমরা বোর্ড সভায় আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেব।’

ক্রিকেটারদের ১১ দফা দাবি নিয়ে বাংলাদেশ জাতীয় দলের ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা বলেন, যখন ক্রিকেট নিয়ে কথা বলব তখন ক্রিকেটের কথা, এখন ক্রিকেট নিয়ে কথা নয়। এখন এই বিষয়ে কোনো কথা বলব না। বিশ্বকাপের পরে আর ক্রিকেট নিয়ে কথা বলছি না আমি, আবার যখন ফিরব তখন কথা হবে।

বাংলাদেশের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি দলের অধিনায়ক সাকিব আল হাসান মিরপুর স্টেডিয়ামে দাবি পেশ করে বলেছেন, যতদিন পর্যন্ত আমাদের দাবি পূরণ না হবে ততদিন আমরা আর ক্রিকেটের সঙ্গে যুক্ত থাকতে চাচ্ছি না।

আসন্ন ভারত সফরের আগে ২৫ অক্টোবর জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের ক্যাম্প শুরু হবে। যদি দাবি না মানা হয় তাহলে আপনারা কি ক্যাম্পে যোগ দেবেন?

এমন প্রশ্নের জবাবে সাকিব আল হাসান বলেন, যতক্ষণ পর্যন্ত আমাদের দাবি মেনে নেয়া না হবে ততক্ষণ পর্যন্ত আমরা খেলায় মনোনিবেশ করব না। আমরাও খেলতে চাই। আমরা হয়ত আর দুই-তিন বছর জাতীয় দলে খেলব। কিন্তু যারা ভবিষ্যতে আসবে তারা যাতে এ সব সমস্যার সম্মুখীন না হয় সে জন্যই আমাদের এ দাবি।

ক্রিকেটারদের ১১ দফা …

১. কোয়াবের (ক্রিকেটার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ) কোনো কার্যক্রম না থাকায় বর্তমান কমিটিকে অবিলম্বে পদত্যাগ করতে হবে।

২. প্রিমিয়ার লিগ আগের মতো করতে হবে। নিজেদের ডিল করতে দিতে হবে।

৩. এ বছর না হোক, তবে পরের বছর থেকে আগের মতো বিপিএল হতে হবে, লোকালদের দাম বাড়াতে হবে।

৪. প্রথম শ্রেণির ম্যাচ ফি ১ লাখ, বেতন বাড়াতে হবে, বারো মাস কোচ ফিজিও দিতে হবে, প্রতি বিভাগে প্র্যাকটিসের ব্যবস্থা করতে হবে।

৫. ভালো মানের বল দিতে হবে, ডিএ ১৫০০ টাকায় কিছু হয় না, তাই বাড়াতে হবে, ট্রাভেল প্লেন ভাড়া দিতে হবে, হোটেল ভালো হতে হবে।

৬. চুক্তিভুক্ত ক্রিকেটারের সংখ্যা ও বেতন বাড়াতে হবে।

৭. দেশি সব স্টাফদের বেতন বাড়াতে হবে, কোচ থেকে গ্রাউন্ডস, আম্পায়ার সবার বেতন বাড়াতে হবে।

৮. ঘরোয়া ওয়ানডে বাড়াতে হবে, বিপিএলের আগে আরেকটি টি ২০ খেলতে চাই।

৯. ঘরোয়া ক্যালেন্ডার ফিক্সড হতে হবে।

১০. বিপিএলের পাওনা টাকা সময়ের মধ্যে গিতে হবে।

১১. ফ্রেঞ্চাইজি লিগ দুটার বেশি খেলা যাবে না নিয়ম তুলে দিতে হবে। সুযোগ থাকলে সবাই খেলবে।

কমেন্ট