সিলেট জেলা হাসপাতালের কাজ দ্রুত সম্পন্ন না হওয়া পর্যন্ত আমরা রাজপথ ছাড়বো না

সিলেট নিউজ টাইমস্ ডেস্ক::  বৃহত্তর সিলেটের অরাজনৈতিক স্বেচ্ছাসেবী সামাজিক সংগঠন সিলেট কল্যাণ সংস্থা এবং সিকস’র অঙ্গ সংগঠন সিলেট বিভাগ যুব কল্যাণ সংস্থা’র যৌথ আয়োজনে সিলেট জেলা হাসপাতালের কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার দাবীতে মঙ্গলবার বেলা ১১টায় প্রতিকী গণঅনশন কর্মসূচী অনুষ্ঠিত হয়।

প্রতিকী গণঅনশন কর্মসূচীতে বক্তারা বলেন, বৃহত্তর সিলেটবাসীর জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট সিলেট জেলা হাসপাতালের কাজ দ্রুত সম্পন্ন না হওয়া পর্যন্ত আমরা রাজপথ ছাড়বো না। মানননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনকৃত নির্মানাধীন সিলেট জেলা হাসপাতালের বিরুদ্ধে যারা অবস্থান নিয়েছেন, তারা আসলে কি চান? তাদের উদ্যেশ্য কি? মৌলিক অধিকারের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়ে তারা কি প্রমাণ করতে চাচ্ছেন। কোটি মানুষের প্রাণের দাবীকে উপেক্ষা করে গুটিকয়েক ব্যাক্তির অযাচিত ঐতিহ্য রক্ষার আন্দোলন আমাদেরকে অসম্ভবভাবে ব্যাতিত করেছে। সিলেটবাসীর উপলব্ধি ও আকাক্ষা এই নির্দিষ্ট ব্যাক্তিদের কাছে অসম্মানের বিষয় হয়ে দাড়িয়েছে। বক্তারা আরও বলেন, যদি এক চুল পরিমানের ভালোবাসা আধ্যাত্মিক বিভাগীয় নগরীর প্রতি থেকে থাকে তাহলে সিলেট জেলা হাসপাতালের নির্মাণ কার্যক্রম সম্পন্ন করার দাবীতে দলমত নির্বিশেষে সকল প্রকার দ্বিধা ভূলে সম্পৃক্ত হওয়া প্রয়োজন। পাশাপাশি সিলেট বিভাগের সর্বস্তরের নাগরিকদের জন্য চিকিৎসা ব্যবস্থা সহজ করে তোলার লক্ষ্যে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রত্যাশিত নির্মাণাধীন কার্যত্রম দ্রুত সম্পন্ন করার জন্য সিলেট বিভাগের কোটি নাগরিকদের পক্ষ থেকে বিশেষ ভাবে অনুরোধ জানানো হয়।

সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মোহাম্মদ এহছানুল হক তাহেরের সভাপতিত্বে ও সংগঠনের অন্যতম সদস্য হুমায়ুন রশিদ চৌধুরীর পরিচালনায় শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সিলেট কল্যাণ সংস্থার সিলেট জেলা কমিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো. আজিজুর রহমান আজিজ। দাবীর প্রতি একাত্মতা পোষণ করে বক্তব্য রাখেন সিলেট উন্নয়ন ও ঐতিহ্যের স্মারক সংরক্ষণ পরিষদের আহ্বায়ক আল আজাদ, আবুসিনা হাসপাতাল বাস্তবায়ন সংগ্রাম কমিটির আহ্বায়ক ইকরামুল কবির, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট সিলেট বিভাগীয় প্রতিনিধি শামসুল আলম সেলিম, দৈনিক যুগান্তরের ফটো সাংবাদিক মামুন হাসান, দৈনিক বাংলাদেশ প্রতিদিনের ফটো সাংবাদিক নাজমুল কবির পাবেল, বাংলাদেশ ফটো জার্নালিষ্ট এসোসিয়েশনের সিলেট বিভাগীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক শংকর দাস, দৈনিক উত্তর পূর্বের সিনিয়র রিপোটার সজর ঘোষ, সংস্থার উপদেষ্টা হাজী মো. রজব আলী দেওয়ান, সংগঠনের নেতৃবৃন্দদের মধ্য থেকে মোহাম্মদ আলী, মো. নিয়াজ কুদ্দুছ খাঁন, হেলাল আহমদ, বিজিত চন্দ, আনহার চৌধুরী রাজু, মোহাম্মদ সাজ্জাদ খাঁন, মো. রমজান আহদ শাকিল, মামুন আহমদ চৌধুরী, মো. হিরন মিয়া, মো. রহমান আলী, মো. শফিকুল ইসলাম, মো.সজিব ভূইয়া, নব জাগরণ স্বেচ্ছা সেবা ফাউন্ডেশনের সভাপতি সৈয়দ রাসেল, সহ সভাপতি নূর আহমদ, ফাইজা আক্তার রুবি, সহ সাধারণ সম্পাদক ফাহিমা আক্তার নিপা, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মো.জসিম উদ্দিন, ফারজান আক্তার রিপা, দপ্তর সম্পাদক মো. ইমাজ উদ্দিন, সহ-দপ্তর সম্পাদক শান্তা ইসলাম, অর্থ সম্পাদক মো. ছায়েদ আলী, প্রচার সম্পাদক মো. আজিজুর রহমান ওয়াসিম, প্রতিকী গণঅনশন কর্মসূচীতে উপস্থিত ছিলেন আব্দুল্লাহ আল মামুন, মারুফ আহমদ, আব্দুল খালিক, মো. পিকুল হোসেন, মো. বাহাউদ্দিন বাহার, মো. নুর. মো. শিপলু আহমদ, আহমেদ হুসাইন, রাইটার মারুফ আহমদ, আব্দুর রহমান মাসউদ, ছামিয়া আক্তার হেপি, তানজিনা ইসলাম, সুস্মিতা আক্তার আন্নি, তারমিনা আক্তার, ইন্দ্রজ্যোতি পাল জীবন, মো. অলীউর রহমান শামীম, মো. জমশের উদ্দিন. সৈয়দ ইব্রাহীম, আব্দুর মতিন মুতলিব, মো. ইকবাল হোসাইন, ফটো সাংবাদিক শহিদুল ইসলাম সবুজ, ফটো সাংবাদিক মেহেদী হাসান রনী, ইব্রাহিম মিয়া, মো. হামদু মিয়া, মো. কুদ্দুছ মিয়া, মো. নাজমুল হুাসাইন, সৈয়দ মইনুল ইসলাম, মো. আলামিন মিয়া প্রমুখ। ২ঘন্টা স্থায়ী প্রতিকী গণঅনশন কর্মসূচীতে সিলেট বিভাগের প্রায় ২ শতাদিক সচেতন নাগরিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

কমেন্ট