শিক্ষার্থীদের মধ্যে প্রতিযোগিতার মনোভাব গড়ে তুলতে হবে: আরিফ

1 total views, 1 views today

সিলেট নিউজ টাইমস্ ডেস্ক:: ‘চাই স্বাস্থ্য, চাই বল, আনন্দ উচ্ছ্ল পরমায়ু’ এই স্লোগানকে সামনে রেখে সিলেট সরকারি মহিলা কলেজের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা উৎসবমুখর পরিবেশে  সোমবার সকালে কলেজের প্রাঙ্গনে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী ক্রীড়া প্রতিযোগিতার উদ্বোধন ঘোষণা করেন।

জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনার মধ্য দিয়ে কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মো. হায়াতুল ইসলাম আকুঞ্জি জাতীয় পতাকা ও মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী ক্রীড়া পতাকা উত্তোলন করে প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন। কলেজের অধ্যক্ষ শিক্ষার্থীদেরকে শপথ বাক্য পাঠ করান এবং এসময় কলেজের একজন কৃতি খেলোয়াড় প্রজ্জ্বলিত মশাল হাতে মাঠ প্রদক্ষিণ করেন। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাফুফে’র কার্যনির্বাহী পরিষদের সদস্য ও সিলেট জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মাহি উদ্দিন আহমদ সেলিম।

উদ্বোধনী বক্তব্যে মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, শিক্ষার্থীদেরকে শারিরীক ও মানসিক সুস্থতা নিয়ে বড় হতে হবে। যদি সুস্থ শরীর ও সুন্দর মন না থাকে তা হলে কখনো লক্ষ্য অর্জন সম্ভব হয় না। এজন্যে লেখাপড়ার পাশাপাশি খেলাধুলার প্রতি শিক্ষার্থীকে আগ্রহী করে তুলতে হবে। বিশেষ করে শিক্ষার্থীদের মধ্যে প্রতিযোগিতার মনোভাব গড়ে তুলতে হবে। এই প্রতিযোগিতা হবে ভালো মানুষ হবার, সফল মানুষ হবার এবং এই প্রতিযোগিতায় শিক্ষার্থীদেরকে বিজয়ী হতে হবে।

কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মো. হায়াতুল ইসলাম আকঞ্জির সভাপতিত্বে ও সহকারি অধ্যাপক অনুপা নাহার ওয়ালেদা‘র পরিচালনায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে কলেজের উপাধ্যক্ষ প্রফেসর ফাহিমা জীন্নুরায়েনসহ কলেজের শিক্ষক শিক্ষিকা শিক্ষার্থীসহ কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন। বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা শেষে কলেজের অধ্যক্ষ বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন।
সভাপতির বক্তব্যে প্রফেসর হায়াতুল ইসলাম আখুঞ্জি বলেন, সিলেটের ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে সিলেট সরকারি মহিলা কলেজ সারা দেশে একটি ভাবমূর্র্তি গড়ে তুলেছে, গৌরবের সেই ধারা অব্যাহত রাখতে শিক্ষার্থীদেরকে সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা চালাতে হবে।

বিশেষ অতিথি মাহি উদ্দিন আহমদ সেলিম বলেন, সিলেটের নারী শিক্ষার উন্নয়নে সিলেট সরকারী মহিলা কলেজের রয়েছে অনন্য অবদান। এই প্রতিষ্ঠানের জন্যে সিলেটবাসী গর্বিত।

কমেন্ট
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •