রংপুরে বাসচাপায় স্কুলছাত্র নিহত, সড়ক অবরোধ

110 total views, 2 views today

নিউজ ডেস্ক:: রংপুরে দশম শ্রেণির এক ছাত্র মিনিবাসের চাপায় প্রাণ হারিয়েছে। গতকাল রংপুর-কুড়িগ্রাম মহাসড়কের দর্শনা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী ও শিক্ষার্থীরা ২টি বাস ও একটি অ্যাম্বুলেন্স ভাঙচুর করে ঢাকা-রংপুর মহাসড়ক অবরোধ করে রাখে। এলাকাবাসী ও পুলিশের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় পুলিশসহ ১০ জন আহত হয়েছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ ফাঁকা গুলি ও টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, বদরগঞ্জ উপজেলার নাগেরহাটের জাহেদুল ইসলামের পুত্র মো. জিয়ন রংপুর কালেক্টরেট স্কুল অ্যান্ড কলেজের দশম শ্রেণির ছাত্র। সে দর্শনা এলাকার মেঘলা ছাত্রাবাসে থেকে লেখাপড়া করতো।

গতকাল ১২টার দিকে স্কুল থেকে সাইকেলযোগে ছাত্রাবাসে ফিরছিল। এসময় রংপুর থেকে গাইবান্ধাগামী একটি মিনিবাস তাকে পেছন থেকে চাপা দিলে সে ঘটনাস্থলেই মারা যায়। এ ঘটনায় বিক্ষুদ্ধ এলাকাবাসী ও শিক্ষার্থীরা সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করতে থাকে। উত্তেজিত এলাকাবাসী ২টি বাস ও একটি অ্যাম্বুলেন্স ভাঙচুর করে। বিক্ষোভ চলাকালে সড়কের দুইপাশে শত শত যানবাহন আটকা পড়ে রংপুরসহ উত্তরের কয়েকটি জেলার সঙ্গে ঢাকাসহ অন্যান্য জেলার যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়। পুলিশ নিহতের লাশ স্বজনদের কাছে হস্তান্তরের জন্য নিয়ে গেলে এলাকাবাসী ও শিক্ষার্থীরা পুলিশের ওপর চড়াও হয়ে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করতে থাকে। ফলে পুলিশের সঙ্গে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ফাঁকা গুলি ও টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে। এ ঘটনায় রংপুর কোতোয়ালি থানার ওসি তদন্ত মোক্তারুল ইসলামসহ উভয়পক্ষের ১০ জন আহত হয়। ৩ ঘণ্টা সড়ক অবরোধের পর যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাইফুর রহমান জানান, পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনেছে। ঘাতক মিনিবাসটি আটকে আমরা চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। ওই এলাকায় যেন আর কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে সেজন্য পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক আছে।

কমেন্ট
শেয়ার করুন
  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    1
    Share