নিষেধাজ্ঞার অবসান, চালকের আসনে সৌদি নারী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: সৌদি আরবের নারীদের গাড়ি চালানোর ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের ঘোষণা শনিবার মধ্যরাত থেকে কার্যকর হয়েছে। কয়েক দশকের এই নিষেধাজ্ঞার অবসানের মধ্য দিয়ে নারীদের সঙ্গে নিয়ে এক নতুন যুগে প্রবেশ করল দেশটি।

গত বছর সেপ্টেম্বর মাসে নারীদের ওপর থেকে গাড়ি চালানোর নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে নেওয়ার কথা জানিয়েছিল সৌদি সরকার। এই সিদ্ধান্ত ঘোষণার পর থেকে এ নিয়ে প্রচুর জল ঘোলা হয়েছিল। নারীদের সমঅধিকার নিয়ে সোচ্চার বেশ কয়েকজনকে গ্রেপ্তারও করা হয়েছিল। তবে সব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে চলতি মাসের প্রথম সপ্তাহে প্রথম নারীদের ড্রাইভিং লাইসেন্স দেওয়া শুরু করে সৌদি কর্তৃপক্ষ। শনিবার মধ্যরাতে নিষেদ্ধাজ্ঞা শেষ হবার সঙ্গে সঙ্গে রিয়াদ ও জেদ্দার মতো বড় শহরগুলোতে নারীদের গাড়ি নিয়ে বেরিয়ে আসতে দেখা গেছে।

এমনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল জানায়, নারীদের অধিকার নিয়ে উচ্চকণ্ঠ এমন আট জনকে গ্রেপ্তার করেছে সৌদি কর্তৃপক্ষ। মানবাধিকার সংস্থাটির আশঙ্কা সন্ত্রাসবিরোধী আইনে তাদের বিচার করা হতে পারে। এমনটা হলে দীর্ঘ কারাবাসের শাস্তির মুখে পড়তে হবে তাদের। গ্রেপ্তার নারী অধিকার কর্মীদের মুক্তি দাবি করে সৌদি আরবে আরও সংস্কারের আহ্বান জানিয়েছে এমনেস্টি।

গাড়ি চালানোর অনুমতি পেতে দীর্ঘদিন সংগ্রাম করতে হয়েছে সৌদি নারীদের। ১৯৯০ সালে রাজধানী রিয়াদে আইন ভেঙে গাড়ি চালানোয় বেশ কয়েকজন নারীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। সে দফায় দমে গেলেও ২০০৮ সালের পর থেকেই পরিবর্তনের হাওয়া বইতে শুরু করে দেশটির নারীদের মধ্যে। ২০০৮ থেকে ২০১৪ সালের মধ্যে সৌদি আরবের অসংখ্য নারী ড্রাইভিং সিটে বসে সেলফি তুলে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট করে প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

কমেন্ট

Leave a Reply

Your email address will not be published.