ফারাক্কা লংমার্চ তথা জাতীয় রাজনীতিতে মওলানা ভাসানীর আদর্শ অনুকরণীয়

38 total views, 1 views today

১৯৭৬ সালের ১৬ মে মজলুম জননেতা মওলানা আব্দুল হামিদ খান ভাসানীর নেতৃত্বে অনুষ্ঠিত ঐতিহাসিক ফারাক্কা লংমার্চ দিবস উপলক্ষে মওলানা ভাসানী ফাউন্ডেশন সিলেটের উদ্যোগে গতকাল ১৪মে সোমবার নগরীর শাহজালাল উপশহরস্থ কার্যালয়ে ফাউন্ডেশনের সহ সভাপতি একেএম আহাদুস সামাদের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক দিদার ইবনে তাহের লস্করের পরিচালনায় এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন, আজ থেকে ৪২ বৎসর পূর্বে মজলুম জননেতা মওলানা ভাসানী নদী আগ্রাসনের বিরুদ্ধে যে ঐতিহাসিক লংমার্চ করেছিলেন তার সেই অবদান জাতি আজও শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করছে। প্রতিবেশী রাষ্ট্রের নদী আগ্রাসনের কর্মকান্ডের মাধ্যমে বাংলাদেশকে মরুভূমিতে পরিণত করা এবং পরিবেশের ভারসাম্য বিনষ্ট করার গভীর ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে মওলানা ভাসানী ফারাক্কা লংমার্চের মাধ্যমে ভারতীয় সরকারের কাছে এদেশের আপামোর জনসাধারণের প্রতিবাদের বার্তা পৌছে দিয়েছিলেন। কিন্তু আজ অবদি প্রতিবেশী রাষ্ট্র হিসেবে ভারত এসব প্রতিবাদে কর্ণপাত না করে একের পর এক নদী আগ্রাসনের মাধ্যমে স্বাধীন বাংলাদেশের জীববৈচিত্র এবং জলবায়ূ ধ্বংসের হীন কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছে।

যার দূর্ভোগের শিকার বাংলাদেশের জনগণ প্রতিনিয়ত হচ্ছে। শুধুমাত্র তিস্তা পানি চুক্তি নয়, ৫৪টি নদীর পানির ন্যায্য হিস্যা থেকে এদেশের জনগণ বঞ্চিত। যারা রাষ্ট্র ক্ষমতা পরিচালনা করছেন, তারাও এই ব্যর্থতার দায়ভার নিতে হবে। তাই মওলানা ভাসানীর আদর্শকে অনুস্মরণ করে জাতীয় ঐক্যের মাধ্যমে সকল রাজনৈতিক দল ও সংগঠন সমূহকে দেশীয় স্বার্থ রক্ষায় ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।

আলোচনা সভায় অংশগ্রহণ করেন ও বক্তব্য রাখেন বিশিষ্ট শিক্ষাবীদ ও রাজনীতিবিদ ভাষা সৈনিক অধ্যক্ষ মাসউদ খান, জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান এডভোকেট গিয়াস উদ্দিন আহমদ, বিশিষ্ট শিক্ষাবীদ অধ্যক্ষ কবি কালাম আজাদ, বিশিষ্ট সংগঠক বীর মুক্তিযোদ্ধা এডভোকেট মুজিবুর রহমান চৌধুরী, সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি এডভোকেট এমাদুলাহ শহীদুল ইসলাম শাহীন, সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ, সিলেট প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি ইকবাল সিদ্দিকী, সিলেট জেলা সাম্যবাদী দলের সাধারণ সম্পাদক কমরেড ধীরেন সিংহ, দ্যা ডিপ্লোমেট টাইম্স পত্রিকার সম্পাদক রুহুল ফারুক, লেখক ও গবেষক জিবলু রহমান, সিলেট জেলা জনতা পার্টির সাধারণ সম্পাদক আখলিছ আহমদ চৌধুরী, ভাসানী ফাউন্ডেশনের নির্বাহী সদস্য কয়েছ আহমদ সাগর, প্রচার সম্পাদক এডভোকেট মোবারক হোসেন রনি, সংগঠক আমিন তাহমিদ, হাবিবুর রহমান চৌধুরী, আবেদ আক্তার চৌধুরী, ফয়সল আহমদ সজল, জামিল আহমদ, মোঃ আব্দুল হাকিম, মুনসি ইকবাল, মির্জা আবুল কাশেম, আজাদ আহমদ প্রমুখ।

সভার শেষে ঢাকায় চিকিৎসাধীন মওলানা ভাসানী ফাউন্ডেশন সিলেটের সভাপতি প্রবীণ রাজনীতিবীদ এডভোকেট সৈয়দ আশরাফ হোসেনের সুস্থ্যতা কামনা করে এবং দেশ ও জাতির কল্যাণ কামনায় মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়।

কমেন্ট
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •