সিএমএইচ ছাড়লেন জাফর ইকবাল

নিউজ ডেস্ক:: ‘উগ্রবাদী’র হামলায় আহত হয়ে ১১ দিন হাসপাতালে থাকার পর সিলেটে নিজ কর্মস্থল শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে রওয়ানা হয়েছেন বরেণ্য শিক্ষাবিদ মুহম্মদ জাফর ইকবাল।

বুধবার সকাল ১০টা দিকে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতাল থেকে ছাড়া পান প্রখ্যাত এই শিক্ষক ও কথা সাহিত্যিক। এ সময় তার স্ত্রী ইয়াসমিন হক এবং মেয়ে ইয়েশিম ইকবালও উপস্থিত ছিলেন।

বিদায় দেয়ার সময় সিএমএইচ কর্তৃপক্ষও জাফর ইকবালকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানায়। আর ১১ দিনের চিকিৎসার জন্য তিনিও ধন্যবাদ জানান সিএমএইচ কর্তৃপক্ষকে।

জাফর ইকবাল সিলেট যাচ্ছেন শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলতে। বিমানযোগে সেখানে যাওয়ার পর আলোচনা শেষে তার আজই আবার ঢাকায় ফিরে আসার কথা রয়েছে।

গত ৩ মার্চ নিজ বিশ্ববিদ্যালয়ে এক অনুষ্ঠানে জাফর ইকবালকে ছুরি দিয়ে হত্যার চেষ্টা করেন যুবক ফয়জুল হাসান। তাকে সঙ্গে সঙ্গে আটকও করা হয়।

সেখান থেকে জাফর ইকবালকে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে রাত ১২টার পর আনা হয় ঢাকা সিএমএইচে।

পরদিন সিএমএইচের প্রধান কার্ডিয়াক অ্যান্ড কনসালটেন্ট সার্জন মেজর জেনারেল মুন্সি মো. মজিবুর রহমান জানান, জাফর ইকবালের সম্পূর্ণরূপে আশঙ্কামুক্ত। তবে তাকে কয়েকদিন হাসপাতালে থাকতে হবে।

এই শিক্ষাবিদের মাথার পেছনে ছোট চারটি, পিঠের ওপরের দিকে একটি এবং বাম হাতে একটি আঘাত করা হয়েছে। মাথার আঘাত স্কিন (চামড়া) ও মাসলে (পেশী) লেগেছে, ব্রেনে (মগজ) লাগেনি। পেটেও কোন আঘাত লাগেনি।

৫ মার্চ জাফর ইকবালকে দেখতে হাসপাতালে যান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

র‌্যাব জানিয়েছে হামলাকারী ফয়জুল উগ্রপন্থায় দীক্ষিত হয়েছিলেন। জাফর ইকবালকে ইসলামবিরোধী ভেবে তাকে হত্যার চেষ্টা করেছেন তিনি। ফয়জুলের পাশাপাশি তার ভাই, বাবা, মা ও মামাকেও রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ।

কমেন্ট
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •