পুতিনকে অপেক্ষায় রাখলেন এরদোগান, ভাইরাল ভিডিও

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: প্রায় এক মিনিট রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন দুটি চেয়ারের সামনে একা দাঁড়িয়ে রয়েছেন। হাঁটাহাঁটিও করছেন। অপেক্ষায় আছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগানের জন্য। যেখানে দুই রাষ্ট্রনেতার মধ্যে একটি বৈঠক হয়েছে।

কিন্তু বৈঠকের আগে পুতিনকে প্রায় ৫০ সেকেন্ড ধরে এরদোগানের জন্য অপেক্ষা করতে দেখা যায় একটি ভিডিওতে।

আর এই ভিডিওটি ইতোমধ্যে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। যেখানে এরদোগানের জন্য অপেক্ষার সময় প্রেসিডেন্ট পুতিনকে কিছুটা অস্বস্তিও বোধ করতে দেখা যায়।

ভিডিওতে আরও দেখা যায়, তেহরানের একটি ভবনের কক্ষে বৈঠকের জন্য প্রবেশ করছেন প্রেসিডেন্ট পুতিন। কিন্তু তাকে অভ্যর্থনা জানানোর জন্য সেখানে কেউই উপস্থিত নেই। রুশ নেতা তার চেয়ার এবং দুই দেশের পতাকার সামনে ৫০ সেকেন্ড ধরে দাঁড়িয়ে আছেন। এ সময় তাকে কখনো দুই হাত পেটের নিচে আঁকড়ে ধরে থাকতে, কখনো চিবানোর মতো করে মুখ নড়াচড়া করতে এবং এরদোগানের উপস্থিতির আগে তার অবস্থানও পরিবর্তন করতে দেখা যায়।

এমন সময়ে সেই কক্ষে প্রবেশ করেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান। তখন পুতিনকে কিছুটা হাস্যোজ্জ্বল এবং উভয় হাত প্রসারিত করে এরদোগানের দিকে এগিয়ে গিয়ে হাত মেলাতে দেখা যায়। এরদোগানও হাস্যোজ্জ্বল চেহারায় পুতিনকে জিজ্ঞাসা করেন, হ্যালো, কেমন আছেন, ভালো?
বিশ্বনেতাদের অপেক্ষায় রাখার জন্য পুতিনের বেশ পরিচিতি আছে। আর এই অপেক্ষা অনেক সময় ঘণ্টার পর ঘণ্টা ধরেও চলেছে। তুরস্কের গণমাধ্যম অবশ্য ২০২০ সালে মস্কোর একটি বৈঠকের ঘটনা সামনে এনে বলেছে, সম্ভবত প্রতিশোধ নিলেন এরদোগান। ওই বছর মস্কোতে বৈঠকে বসার আগে এরদোগানকে প্রায় দুই মিনিট ধরে অপেক্ষায় রেখেছিলেন পুতিন।

বুধবার তুরস্কের সংবাদমাধ্যম টিটোয়েন্টিফোর এ ঘটনার সংবাদের শিরোনাম করেছে, এটি কি প্রতিশোধ ছিল? অনলাইনে এই ভিডিও ব্যাপক আলোড়ন তুলেছে।

সূত্র: এনডিটিভি, ফক্স নিউজ।

কমেন্ট

Leave a Reply

Your email address will not be published.