এক মাসের মধ্যে তামাবিল স্থল বন্দরে বসছে ব্যাংক বুথ–সিলেটে এনবিআর চেয়ারম্যান

9 total views, 2 views today

সিলেট নিউজ টাইমস্ ডেস্ক:: এক মাসের মধ্যে তামাবিল স্থল বন্দরে ব্যাংক বুথ বসানো হবে বলে জানিয়েছেন অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগের সিনিয়র সচিব ও জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যান মো. মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া। তিনি বলেছেন, ‘এখানে ব্যাংকের বুথ স্থাপন করা হলে ব্যবসায়ীদের পাশাপাশি পর্যটকরাও সুবিধা পাবেন। সে ব্যাপারে তিনি ব্যবস্থা নেবেন।’

শনিবার সিলেট নগরীর দরগাহ গেইটস্থ হোটেল স্টার প্যাসিফিকের হলরুমে বিভিন্ন অংশীজনের সঙ্গে ২০১৯-২০২০ অর্থবছরের জাতীয় বাজেটের উপর প্রাক-বাজেট আলোচনায় ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দের দাবির প্রেক্ষিতে তিনি এ কথা জানিয়েছেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি সিলেটের বিয়ানীবাজারের শেওলা স্থলবন্দরসহ দেশের বিভিন্ন স্থলবন্দর দিয়ে পণ্য আমদানিতে তালিকা বাড়ানোর হবে বলেও জানিয়েছেন। তবে এক্ষেত্রে কোন পণ্য আমদানিতে দেশের অর্থনীতিতে ক্ষতি হলে তা তালিকায় যোগ হবে না বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

এছাড়া তিনি কয়লা, চুনাপাথর ও পাথর আমদানীতে ব্যবসায়ীদের সুবিধা দেওয়ার চেষ্টা করবেন বলেও জানান। এনিয়ে তিনি পরিবেশের সাথে কথাও বলবেন। এছাড়া তামাবিল স্থল বন্দরের অবকাঠামোর উন্নয়ন শিগগিরই শুরু হবে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

সিলেট চেম্বার সভাপতি খন্দকার সিপার আহমদের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় তিনি চিকিৎসক ও আইনজীবীদের ট্যাক্স বৃদ্ধির উপায় খোঁজা হচ্ছে বলেও মন্তব্য করেন।

তিনি আরও বলেন, সরকারি হাসপাতালগুলোর মতো বেসরকারি হাসপাতালও স্বাস্থ্য সেবায় বেশ অবদান রাখছে।

বেসরকারি হাসপাতালগুলো ট্যাক্স প্রদান করে থাকে। তবে তারা রোগিদের কাছ থেকে যে তুলনায় অর্থ আদায় করে য তাই তাদের উপরও ট্যাক্স বাড়ানো যায় কিনা- এর উপায় খোঁজা হচ্ছে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

সিলেট চেম্বার সভাপতি খন্দকার সিপার আহমদের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় তিনি আরও বলেন, ‘বাংলাদেশ এখন এগিয়ে যাচ্ছে। দেশের উন্নয়ন হচ্ছে। এতে সকল জনসাধারণের অংশগ্রহণ এবং অবদান রয়েছে। বিদেশী সহায়তা আগের থেকে কম নেওয়া হচ্ছে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।’

মতবিনিময় সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সদস্য (কাস্টমস পলিসি) মো. ফিরোজ শাহ আলম, জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সদস্য (করনীতি) কানন কুমার রায়, জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সদস্য (ভ্যাটনীতি) আব্দুল মান্নান শিকদার, সিলেটের কাস্টমস এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনার গোলাম মোহাম্মদ মনির, সিলেটের কর কমিশনার রঞ্জিত কুমার সাহা প্রমুখ।

সিলেট চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি খন্দকার সিপার আহমদের সভাপতিত্বে সভায় জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সদস্যবৃন্দ, প্রশাসনের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত রয়েছেন। ২০১৯-২০২০ অর্থবছরের বাজেট প্রণয়নের নীতিগত দিক সম্পর্কে মতবিনিময়ের উদ্দেশ্যে এ সভার আয়োজন করা হয়েছে।

কমেন্ট

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.