সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ৩দিন ব্যাপী চিত্র প্রদর্শনী শুরু

সিলেট নিউজ টাইমস্ ডেস্ক:: সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ৩দিন ব্যাপী ‘বাংলাদেশের প্রকৃতি ও মুক্তিযুদ্ধ’ শীর্ষক চিত্র প্রদর্শনীর শুরু হয়েছে। ২০ জানুয়ারি রোববার সকাল ১১টায় সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মিলনায়তনে এর উদ্বোধন হয়।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবসা প্রশাসন বিভাগের অধ্যাপক ড. মাজহারুল হাসান মজুমদার বলেন, মুক্তিযুদ্ধের ঘটনা প্রত্যেক শিক্ষার্থীকে বিস্তৃতভাবে জানাতে হবে। মুক্তিযোদ্ধাদের আত্মত্যাগ আর যুদ্ধের লক্ষ্য, স্বাধীন দেশের প্রতি দায়িত্ব-কর্তব্য এসব বোঝাতে হবে। কারণ আজকের শিশু, তরুণ, যুবারাই আগামী দিনের ভবিষ্যৎ। তারাই আমাদের নতুন দিনের পথ দেখাবে। তিনি বলেন, এই বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা ভালো কাজের বিনিময়ে দেশে ও বিদেশে অনেক বড় মাপের গুণী ব্যক্তিতে পরিণত হয়েছেন। সিলেট সহ বাংলাদেশের জন্য সুনাম অর্জন করেছেন। বর্তমানের সরকারের উর্ধ্বতন পর্যায়েও কাজ করছেন। তিনি বলেন, এ ধরনের অনুষ্ঠান দেশের প্রত্যেকটি সরকারি ও বেসরকারি বিদ্যালয়, কলেজ, স্কুল মাদ্রাসায় করানো প্রয়োজন। এতে নতুন প্রজন্মরা মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস সম্পর্কে আরো জানতে পারবে এবং জানতে উদ্বুদ্ধ হবে।

সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জগদীশ চন্দ্র দেবনাথের সভাপতিত্বে ও সহকারি শিক্ষক ফৌজিয়া আক্তারের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন ইন্সপেক্টর অব কলেজ শাবিপ্রবির তাজিম উদ্দিন, সহকারি প্রধান শিক্ষক (দিবা) কবির খান, সহকারি প্রধান শিক্ষক (প্রভাতি) মুখলেছুর রহমান, আহ্বায়ক হরিটন সূত্রধর, শিলা সাহা, চিত্র প্রদর্শনীর সার্বিক পরিচালনায় ছিলেন চারু কারু সহকারি শিক্ষক বাদল চন্দ্র বর্মন প্রমুখ।

অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করে শিক্ষার্থী মো. জুয়েল আহমদ ও গীতা পাঠ করে অরিত বিশ্বাস।
উল্লেখ্য, উক্ত প্রতিযোগিতায় প্রায় হাজারের অধিক শিক্ষার্থীদের মধ্যে চূড়ান্ত বাছাই করে প্রায় দু’ শতাধিক শিক্ষার্থীদের আকাঁ চিত্র নিয়ে এ চিত্র প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত হয়। এ চিত্র প্রদর্শনী চলবে আগামী ২২ জানুয়ারি পর্যন্ত।

কমেন্ট

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.