সিলেট নিউজ টাইমস্ | Sylhet News Times

সম্পর্ক পরকীয়ায় দিকে ঝুঁকছে যে কারণে

168 total views, 1 views today

বিনোদন ডেস্ক :: ব্যস্ততম জীবনে মানুষ নানান মিথস্ক্রিয়ায় ভুগছে। এর ওপর বাড়তি প্রতিযোগিতা তাকে রাখছে সময়ের দৌড়ে। যুক্ত হয়েছে ডিজিটাল উপকরণ। দেখা গেছে স্বামী-স্ত্রী দুজন যখন বাড়িতে একসঙ্গে আছে কিন্তু পৃথক রুমে আইফোনে ব্যস্ত। তাদেও নিজেদের ভাববিনিময় হচ্ছে কমই। আর এ কারণে তৈরি হচ্ছে দূরত্ব।
বিবাহিতাদের পরকীয়ায় জড়ানোর পেছনে সমাজ গবেষকরা খুঁজে বের করেছেন ৫ কারণ।

একাকীত্ব
দুজনই চাকরি করেন। দুজনের রুটিন দুরকম। দুজনের ছুটি দুদিনে। তাতে এক ছাদের নিচে বাস করলেও তাদের নিজেদেও মধ্যে দেখা হচ্ছে কমই। বরং চাকরিতে দিনের বেশিরভাগ সময় দেয়ায় পাশের চেয়ারের মানুষটির সঙ্গে ভাবের আদান-প্রদান অনেক বেশি হচ্ছে। অনেকে নারী চাকরি থেকে সন্ধের মধ্যে ঘরে ফেরেন। কিন্তু তাদের স্বামীরা হয়তো ফেরেন মধ্যরাতে। অনেকের স্বামী আবার অন্য শহরে বা দেশে কাজ করেন। এর ফলে বিবাহিতাদের মধ্যে একাকীত্ব বাড়ছে। আর তা থেকেই পরকীয়ায় জড়ানোর সম্ভাবনা বাড়ছে।

লালসা

বিবাহিত জীবনে যৌন-সম্পর্কে অতৃপ্তি রয়েছে দু’নম্বর কারণ হিসেবে। অনেকেই ব্যস্ততার কারণে ক্লান্ত একে অন্যের ইচ্ছের পূর্ণতা দিতে পারে না। এতে নিজেদের মধ্যে অবসাদ তৈরি হয়।

মনোযোগের অভাব
বিবিধ কারণে অনেকের ক্ষেত্রেই স্বামী বা স্ত্রী একে অন্যের প্রতি যথাযথ মনোযোগ দেন না। তা থেকেই আসে হতাশা। এর পরিণতি, পরকীয়া।

বুদ্ধিবৃত্তিক দূরত্ব, মতপার্থক্য
স্বামী এবং স্ত্রীর মধ্যে বুদ্ধিবৃত্তিক তারতম্য, বা ইন্টেলেকচুয়াল ডিফারেন্সও পরকীয়ার আর এক কারণ। অনেক সাম্প্রতিক ইস্যু নিয়ে আলোচনায় দুজনের বিপরীত অবস্থানও অনেক সময় তাদেও মধ্যে তফাত গড়ে দেয়।

অর্থ এবং ক্ষমতার ভারসাম্য
আর্থিক ক্ষমতার ভারসাম্য বেশিরভাগ ক্ষেত্রে নারী-পুরুষের মধ্যে তফাত গড়ে দেয়। নিজের স্বামীর অর্থ ও ক্ষমতার প্রতি আস্থা হারালে অনেক সময় স্ত্রীরা আবার উল্টো ঘটনাও ঘটতে পারে।

কমেন্ট
শেয়ার করুন