“অম্লান বোধ”

94 total views, 1 views today

নিলয় গোস্বামী:-

ভোরের পর আপার্থিব পৃথিবীর গাঁয়ে….
মেঘমেদুর সপ্ত স্বরাঘাত!
কিছু কিছু অম্লান বোধ–

অগ্নিরথে ছুঁইয়ে নেই ত্রিবেণীর জল
এতকালের বোধন —চন্দ্রিকার অভিমান ,বেতালের পরিহাসে অতল

দিগন্ত ঘেঁষা শ্যাম রাগের ধুমসা আলাপ —
মারিচের হরিন সাজবার বৃথা সংকল্প
সবকিছু ক্ষীয়মাণ শুধু সত্যব্রত উপবাস অমলীন !

পূর্ণিমার রুপোলী আলোয় ভরা সবুজ ঘাসের মাঠ,
কনিষ্ঠার বন্ধন, কাঁধেরাখা অষ্টাদশীর অবয়বের অর্ধেক,
সীমানা ছাড়ানো চারটি আঁখির সমান্তরাল দৃষ্টি– সাথে আকাশ পরিভ্রমণ , অনুপম অস্থির অস্থির!!

জ্যোৎস্নাময় কাশবেনের অপূর্ব হিন্দোল পরিবেশনা, সাথে গাছদের ডাল-পালা নেড়ে
সংগত করার বৈষ্ণবীয় অনু্যোগ!
প্রাণ খুঁজেনেয় কিছু প্রলাপ কিছু বর্ণচোরার ম্রিয়মাণ মুখ।

হেঁটে যায় কিছু সন্ধ্যা তারার দীর্ঘকায় সুর
চাপা মনের অপ্রকাশিত বিলাপ, অনুভব ঘেঁষার বাঞ্ছিতভাব-
নিজেই নিজের বাধাদায়ক অথবা স্বমহিমায় চপল।

কিছুদূর পথ পাড়ি আবার অগ্নিরথে সঙ্গোপনের বাড়ি!!
নিথর অনুপানে বিলাসকানন ছাড়ি;
আবার মৃত্যিকার দানা খুঁড়ে একেকদিন ফলাই আমার নিজস্ব কিছু অনুভূতি আর চিত্রকল্পের ডানামেলা আড়ি।

ধেয়ে আসে মধ্যরাতের গত পৃথিবীর স্মৃতি
এখন শুধু সংযুক্তির পরমপরা আমি।

কমেন্ট
শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •